Ameen Qudir

Published:
2020-01-03 15:31:56 BdST

সিনিয়র সিটিজেনদের মানসিক ব্যথাবেদনা


 

ডা. সুলতানা এলগিন
সহযোগী অধ্যাপক
মনোরোগ বিদ্যা বিভাগ এবং কনসালটেন্ট, ও সি ডি ক্লিনিক, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়, ঢাকা।
সম্পাদক, ডাক্তার প্রতিদিন.কম
___________________________

বিশ্বের সকল প্রান্তে ষাটোর্ধ্ব ব্যক্তিদের সিনিয়র সিটিজেন বা প্রবীণ ব্যক্তি হিসেবে সমাজে একটা আলাদা গ্রুপে চিহ্নিত করা হয়েছে । বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা এর পরিসংখ্যান অনুযায়ী সিনিয়র সিটিজেনদের ১৫% মানসিকরোগে ভোগে। তার মধ্যে ডিপ্রেশন ১৫%-২০% । বাংলাদেশে বর্তমানে দেশে প্রবীণ জনসংখ্যা প্রায় দেড় কোটি, যা মোট জনসংখ্যার প্রায় ৮% এবং বৃদ্ধির হার ৪.৪১ %।
শারীরিক অসুস্থতা ,মানসিক সমস্যা টানাপোড়েন এ বয়সে অন্যান্যদের চেয়ে কোন অংশে কম নয় বরং বেশীই। জীবনের বিরাট অংশের দায়দায়িত্ব শেষে একাকীত্ব,অর্থসংকট, শারীরিক জীর্ণতার বোঝা চেপে বসে। পঞ্চান্ন উর্ধ্ব ব্যক্তিদের প্রায় ২০% মানুষ সাধারণত যে সকল মানসিক সমস্যার মুখোমুখি হয়ে থাকেন : উদ্বেগ,বিষন্নতা,খাদ্যে অরুচি, আত্মহত্যার চিন্তা,স্মৃতিভ্রম ইত্যাদি।
সিনিয়র সিটিজেন বা প্রবীণ ব্যক্তিদের মানসিক সমস্যাগুলো কেন উপেক্ষিত হয় ?
মানসিক রোগ সব দেশে সব বয়সে একটা উপেক্ষিত বিষয় হিসেবে ছিল আর এখনও আছে। কুসংস্কার, ভ্রান্তধারণা বা বয়সের ¯ স্বাভাবিক গতিপ্রকৃতি সম্পর্কে অজ্ঞতা বৃদ্ধবয়সে মানসিক স্বাস্থ্যর যত্নের বদলে অবহেলা মুখ্য হয়ে দাড়ায়। চিকিৎসকরাও শারীরিক রোগের দিকে বেশী নজর দিয়ে থাকেন। বৃদ্ধ বয়সে বিষন্নতার লক্ষণ যেমন শারীরিক রোগের ঈঙ্গিত করে তেমনি অনিয়ন্ত্রিত শারীরিক রোগও মানসিক রোগের দিকে আঙ্গুলী নির্দেশ করে। শারীরিক ব্যথাবেদনা, অনিয়ন্ত্রিত হাইপার টেনশন.ডায়াবেটিস,অনিদ্রার পিছনে লুকিয়ে থাকে মানসিক ব্যথাবেদনা।আবার বিষন্নতা রোগ ডিমেনশিয়ার লক্ষণ হিসেবে দেখা দিতে পারে।এই দুইয়ের চিকিৎসার ভারসাম্য না হলে সিনিয়র সিটিজেন ক্রমেই সমাজে বোঝা হয়ে উঠবে। মানসিকরোগের জন্য রয়েছে আধুনিক চিকিৎসাব্যবস্থা । সঠিক চিকিৎসায় রোগী সহজেই সেরে ওঠে। আর এজন্য দরকার সামাজিক সচেতনতা, সকলের দায়িত্ববোধ আর চিকিৎসার সুব্যবস্থা।

এই সংক্রান্ত পূর্নাঙ্গ লেখার লিঙ্ক :

https://daktarprotidin.com/mon-jane/4653/%E0%A6%AA%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A6%AC%E0%A7%80%E0%A6%A3-%E0%A6%AE%E0%A6%BE%E0%A6%A8%E0%A6%B8%E0%A6%BF%E0%A6%95-%E0%A6%B8%E0%A7%8D%E0%A6%AC%E0%A6%BE%E0%A6%B8%E0%A7%8D%E0%A6%A5%E0%A7%8D%E0%A6%AF-%E0%A6%AA%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A6%AC%E0%A7%80%E0%A6%A3%E0%A6%A6%E0%A7%87%E0%A6%B0-%E0%A6%A8%E0%A7%9F-%E0%A6%85%E0%A6%AC%E0%A6%B9%E0%A7%87%E0%A6%B2%E0%A6%BE-%E0%A6%85%E0%A6%AC%E0%A6%9C%E0%A7%8D%E0%A6%9E%E0%A6%BE%E0%A6%AA%E0%A6%BE%E0%A6%B6%E0%A7%87-%E0%A6%A5%E0%A6%BE%E0%A6%95%E0%A6%BE%E0%A6%B0-%E0%A6%95%E0%A6%B0%E0%A7%8B-%E0%A6%AA%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A6%A4%E0%A6%BF%E0%A6%9C%E0%A7%8D%E0%A6%9E%E0%A6%BE

আপনার মতামত দিন:


মন জানে এর জনপ্রিয়