Ameen Qudir

Published:
2017-04-11 08:02:26 BdST

সাযযাদ কাদির, আপনার মৃত্যু আমাদের অপরাধী করে দেয়


 

মেজর ডা. খোশরোজ সামাদ
___________________________________

 

১। সাযযাদ কাদির।

কবি,সাংবাদিক,শিক্ষাবিদ,লেখক,গবেষক।সৃজনশীলতার অনেক শাখায় তাঁর অবদান থাকলেও কবি হিসেবেই ব্যপক পরিচিতি পান। সৈয়দ শামসুল হক, শহীদ কাদরীসহ অনেক কবির মৃত্যুর ভার স্বাদেশ মৃত্তিকা যখন সইতে পারছিল না তখন শবের মিছিলে নুতন করে যুক্ত হল তাঁর নাম।

২।অস্ত্র হাতে সন্মুখ সমরে যুদ্ধ নেয়া তিনি এক বীর,মহান মুক্তিযোদ্ধা। সবাধীনতা উত্তর বাংলাদেশে তাঁর নিজ জেলা টাংগাইল সাদত কলেজে শিক্ষকতা শুরু করেন। পরে সাংবাদিকতায় নাম লিখিয়ে স্থায়ীভাবে ঢাকায় চলে আসেন। সিনে ম্যাগাজিন ' তারকালোক' তাঁর মানসপুত্র। জীবনের শেষদিন নাগাদ তিনি ' মানব জমিন' পত্রিকায় যুক্ত ছিলেন।

৩।পতিত স্বৈরাচার অকবিদের নিয়ে ' এশীয় কবিতা উৎসব ' আয়োজন করলে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে শামসুর রাহমানসহ অন্যান্য কবিদের সাথে সৃষ্টি করেন ' জাতীয় কবিতা উৎসব '।

৪।সৃজনশীল অধিকাংশ মানুষের দারিদ্র্য নিত্য সাথী। কবি নজরুল জীবন দিয়ে তা প্রমাণ করে গেছেন। সাযযাদ কাদির অসুরের শত প্রলোভন সত্ত্বেও মোহরের প্রলোভন উপেক্ষা করে গেছেন।তাই, অভাব ছিল তাঁরও নিত্য সংগী।

৫।সাযযাদ কাদির, প্রিয় অগ্রজ, আমার খেরো খাতায় আপনি লিখেছিলেন,' টিটো,(আমার ডাক নাম),জীবনে বড় হও,মানুষ হও,সবাইকে সাথে নাও।' অর্থ- সচ্ছলতার জীবনে আপনাকে সাথে নেয়া তো যায়ই নি, বরং অবজ্ঞা আর উপেক্ষায় ঠেলে দেয়া হয়েছে। এই গ্লানি আমাদের অপরাধী করে দেয়।

৬।তাঁর মৃত্যুর পর পুরোপুরি রাষ্ট্রীয় সন্মানে দাফন করে রাষ্ট্র, জাতি এই গূণীজনের অবদান। সামান্য হলেও পরিশোধ করলো!
_________________________

মেজর ডা. খোশরোজ সামাদ , আর্মড ফোরসেস মেডিকেল কলেজ।
ওয়েস্টার্ন সাহারায় শান্তিরক্ষী হিসেবে সফলভাবে এক বছরের কাজ শেষে আর্মড ফোরসেস মেডিকেল কলেজে সহকারী অধ্যাপক, ফার্মাকোলজি বিভাগে যোগ দিয়েছেন।

আপনার মতামত দিন:


প্রিয় মুখ এর জনপ্রিয়