Dr. Aminul Islam

Published:
2021-12-02 21:38:30 BdST

মর্গ থেকে মর্মান্তিকডায়াবেটিস থেকে বাঁচতে নিয়মিত হাঁটতেন তৃষ্ণা, বেপরোয়া মটর সাইকেল কেড়ে নিলো তাঁর প্রাণ


প্রতীকী ছবি

 

মেডিকেল সংবাদ দাতা

_____________

ডায়াবেটিস থেকে বাঁচতে নিয়মিত হাঁটতেন তৃষ্ণা।
কিন্তু বেপরোয়া মটর সাইকেল কেড়ে নিলো তাঁর প্রাণ।
রাজধানীর রমনা পার্কের সামনের রাস্তায় মোটরসাইকেল ধাক্কায় তৃষ্ণা সাহা নিহত হন। আজ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা পৌনে ৬টার দিকে এই দুর্ঘটনা ঘটে।

গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে সাড়ে ৬টার দিকে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

দুর্ঘটনার সময় তৃষ্ণার সঙ্গে থাকা বান্ধবী কল্পনা পাল জানান, তৃষ্ণা সাহা রাজধানীর বিজয় নগর এলাকায় থাকেন। দুজনই ডায়াবেটিসের রোগী। প্রতিদিন বিকেলে তারা রমনা পার্কে হাটতে বের হন। আজ বিকেলেও দুজন একসঙ্গে পার্কে হাটতে গিয়েছিলেন। পার্ক পুরোটা ঘুরে বাসায় ফেরার জন্য এক নম্বর গেটে আসেন। সেখানে রাস্তা পার হওয়ার সময় একটি দ্রতগতির মোটরসাইকেল তৃষ্ণাকে ধাক্কা দেয়। এতে তিনি ছিটকে পড়ে যান।

চালক বেপরোয়া গতিতে মোটরসাইকেল চালাচ্ছিল বলেও জানান তিনি।

পথচারী মোহম্মদ বলেন, 'মোটরসাইকেলটি শেরাটন হোটেলের দিকে যাচ্ছিল। রমনা পার্কের এক নম্বর গেটের সামনেই ওই নারীকে ধাক্কা দেয়। ধাক্কা দেওয়ার পর মোটরসাইকেলটিও রাস্তায় পড়ে যায়। দেখতে পেয়ে ওই নারীকে দ্রুত হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।'

এ বিষয়ে রমনা থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মো. জুলহাস উদ্দিন ভুইয়া জানান, মোটরসাইকেলে ধাক্কায় ওই নারী মারা গেছে। ঘটনার পরই মোটরসাইকেলসহ চালককে আটক করা হয়েছে। মৃতদেহ ময়না তদন্তের জন্য মর্গে রাখা হয়েছে।


মায়ের মৃত্যুর সংবাদ পেয়ে হাসপাতালে ছুটে অাসা মেয়ে মিথিলা সাহা জানান, তাদের বাড়ি টাঙ্গাইলে। তার বাবা উত্তম কুমার সাহা একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করেন। মা তৃষ্ণা সাহা গৃহিণী ছিলেন। বেশ কিছুদিন ধরে ডায়াবেটিসে ভুগছিলেন। তাই প্রতিদিন হাঁটতে বের হতেন।

আপনার মতামত দিন:


ক্লিনিক-হাসপাতাল এর জনপ্রিয়