Ameen Qudir

Published:
2019-09-02 13:05:03 BdST

উপজেলায় ইন্টার্ন বিতর্কের মাঝেই বরগুনায় ডাক্তার লাঞ্ছিত : এই হল নিত্য বাস্তবতা



সংবাদদাতা ও ডেস্ক
_______________________

এই হল উপজেলা পর্যায়ে অরক্ষিত চিকিৎসকদের নিত্য জীবন বাস্তবতা। প্রতিদিনই স্থানীয় পান্ডাদের হুমকির মুখে থাকতে হয় তাদের। বরগুনার বামনা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে জ্বরে আক্রান্ত হয়ে নিপু (১০) নামের এক শিশু মৃত্যুর ঘটনায় কর্তব্যরত চিকিৎসককে লাঞ্ছিত ও অকথ্য গালিগালাজের অভিযোগ উঠেছে।
কর্তব্যরত ওই চিকিৎসক ডা. সোহেল রানা বলেন, শিশুটিকে ডেঙ্গুর টেস্ট দেওয়া হলেও তার পরিবার তা করায়নি। শনিবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে শিশুটি মারা যায়।

নিপুর বাবা বলেন, গত বৃহস্পতিবার বেলা ১১টার দিকে প্রচণ্ড জ্বর ও মাথা ব্যথার কারণে শিশুটিকে বামনা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করানো হয়। তার ভাল চিকিৎসা দেয়া হয় নি বলে তার দাবী।
ডা. সোহেল রানা বলেন, শিশুটি তিন দিন ধরে জ্বরে আক্রান্ত হওয়ার পর গত ২৯ তারিখ হাসপাতালে ভর্তি হয়। পরিবারের লোকদের ডেঙ্গু পরীক্ষার জন্য বলা হলেও তারা আর্থিক কারণে সময়মতো তা করতে পারেনি। প্রাথমিকভাবে এটাকে সাধারণ জ্বর হিসেবে চিকিৎসা দিয়েছি।

তিনি বলেন, রোগীর শরীরে সাধারণ জ্বরের লক্ষণ ছিল। ডেঙ্গু বা অন্য কোন জ্বরের লক্ষণ ছিল না। শিশুর মৃত্যুর ঘটনায় রোগীর স্বজনসহ এলাকার কিছু মানুষ আমাকে অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ করেছে, যা আমি কোন দিন আশা করিনি। একজন চিকিৎসক কখনই রোগীর অমঙ্গল কামনা করে না। চিকিৎসক হলো রোগীর সেবক। শেষ পর্যন্ত আমরা রোগীর জীবন রক্ষায় ব্রতী ।

বামনা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা বলেন, জ্বর নিয়ে শিশুটি ভর্তি হওয়ার পরে চিকিৎসক প্রাথমিক ভাবে বুঝতে পারেন এটি টাইফয়েড জ্বর। রোগীর শরীরে কোন প্রকার ডেঙ্গুর লক্ষণ না থাকায় চিকিৎসক তাকে টাইফয়েড জ্বর হিসেবেই প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়েছেন এবং রোগীর পরিবারকে ডেঙ্গু ও টাইফয়েড জ্বরের সকল পরীক্ষা করানোর পরামর্শ দেয়া হয়। কিন্তু স্বজনরা সময় মত পরীক্ষাগুলো করায়নি।
এ ঘটনায় শনিবার সকালে স্থানীয় এক রাজনৈতিক নেতা শিশুটির চিকিৎসককে মারতে উদ্যত হন এবং তাকে অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ করেন, যা দুঃখজনক।

আপনার মতামত দিন:


ক্লিনিক-হাসপাতাল এর জনপ্রিয়