Ameen Qudir

Published:
2019-09-01 16:52:58 BdST

দুই বছরের ইন্টার্নশিপ: তীব্র প্রতিবাদের মুখে পিছু হটছে স্বাস্থ্য মন্ত্রক


 

ডেস্ক
____________________________

শিক্ষার্থী ও চিকিৎসক সমাজের তীব্র প্রতিবাদের মুখে পিছু হটছে স্বাস্থ্য মন্ত্রক। দুই বছরের ইন্টার্নশিপ প্রস্তাবকারীরা এখন পশ্চাদাপসরণের রাস্তা খুঁজছে। ১ সেপ্টেম্বর ২০১৯ স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদের (স্বাচিপ) সভাপতি ডা. ইকবাল আর্সলান তার ব্যক্তিগত আইডিতে দেয়া এক ফেসবুক স্ট্যাটাসে বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

তিনি জানান, আমার তরুন চিকিৎসক ও ছাত্রছাত্রীদের জ্ঞাতার্থে জানাচ্ছি, ২ বৎসর ইন্টার্নশিপের বিষয়ের নোটিশ আগামীকাল অফিস খোলার পর প্রত্যাহার করে নেয়া হবে। আশাকরি উদ্ভুত পরিস্থিতির অবসান হবে।

এর আগে মেডিকেল ও ডেন্টাল শিক্ষার্থীদের ইন্টার্নশিপের সময়সীমা একবছর থেকে বাড়িয়ে দুই বছর করার ব্যাপারে খসড়া নীতিমালা করে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। নীতিমালা নিয়ে শিক্ষার্থী ও চিকিৎসকরা সারাদেশেই ফুঁসছে। বিভিন্ন মেডিকেল ক্যম্পাসে সমাবেশ , মিছিল হচ্ছে। তারা বলছেন, এই নীতিমালা বাস্তবায়িত হলে এমবিবিএস ডিগ্রি শেষ করে চিকিৎসক হিসেবে রেজিস্ট্রেশন পেতে একজন শিক্ষার্থীর কমপক্ষে সাত বছর সময় লাগবে। তাছাড়া উপজেলা পর্যায়ে কোনও কনসালটেন্ট থাকেন না, সেখানে শিক্ষার্থীদের শেখার মতো কিছু নেই। এছাড়া নারী শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তার বিষয়টিও গুরুত্বপূর্ণ।

 

এ ব্যাপারে  মিডিয়ায় এক বক্তব্যে ডা. ইকবাল আর্সলান বলেন, ইন্টার্নশিপ হচ্ছে কারিকুলামের একটি অংশ। আর কারিকুলাম তৈরি করে তাকে বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যান্ড ডেন্টাল কাউন্সিল (বিএমডিসি)। এটা স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় বা স্বাস্থ্য অধিদফতরের বিষয় নয়। আমার জানা মতে, বিএমডিসি এ ব্যাপারে কোনও সিদ্ধান্তও গ্রহণ করে নাই এবং বিএমডিসি এ ব্যাপারে কোনও সুপারিশ স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় বা অধিদফতরকে করে নাই।

তিনি আরও বলেন, এটা মন্ত্রণালয় আলোচনা করেছে, কিন্তু তারা তো এ বিষয়ে কিছুই করতে পারবে না, এটা করার অধিকার সংরক্ষণ করে বিএমডিসি। বিএমডিসি আজ পর্যন্ত এ বিষয়ে কোনও সিদ্ধান্ত নেয়নি।

এদিকে, ইন্টার্নশিপ প্রস্তাবনা বাতিল চেয়ে ৩১ আগস্ট বিক্ষোভ ও মানববন্ধন করেছেন রাজধানীর স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজের শিক্ষার্থী। ক্লাস ও পরীক্ষা বর্জন করে এ বিক্ষোভ করেন তারা। এতে অংশ নেন মেডিকেল কলেজের প্রথম থেকে পঞ্চম বর্ষের সকল শিক্ষার্থী।

এ সময় খসড়া নীতিমালাকে অযৌক্তিক আখ্যা দিয়ে তারা বলেন, এটি বাস্তবায়িত হলে মেধাবী শিক্ষার্থীরা ডাক্তারি পেশায় আসতে নিরুৎসাহী হবেন। এতে দেশ বড় ধরনের স্বাস্থ্য ঝুঁকিতে পড়বে। বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা এ সময় ক্লাস থেকে নেমে এসে ‘দুই বছর ইন্টার্নশিপ মানি না, মানবো না’ বলে স্লোগান দিতে থাকেন।

তাদের হাতে ‘দুই বছর ইন্টার্নশিপ মানি না, মানবো না’, ‘দুই বছর ইন্টার্নশিপ প্রস্তাবনা বাতিল চাই’, ‘উপজেলায় আমাদের নিরাপত্তা দেবে কে’, মেধাবীদের চিকিৎসা খাতে নিরূৎসাহিত করবেন না’ লেখা বিভিন্ন প্লেকার্ড দেখা যায়।

 

__________________________________

 

যেখানে মেডিকেল কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয় সহ সকল বিশাল স্থাপনা। 
এখানে সঠিক দামে এপার্টমেন্ট বিক্রি হচ্ছে। ADEPT JAHAN 
১৪ নম্বর রোডে। ৪ কাঠার ওপরে নির্মিত বাড়ি । গ্রাউন্ড +৮ । প্রায় রেডি বাড়ির ল্যান্ড লর্ড তার অংশের ফ্লাট বিক্রি করবেন। 
তিন বেড , ড্রইং ডাইনিং ও অন্যান্য সুবিধা। বিস্তারিত যোগ: :01713430902

 

বিজ্ঞাপণ : সকল যোগ :01713430902

আপনার মতামত দিন:


ক্যাম্পাস এর জনপ্রিয়