Ameen Qudir

Published:
2019-04-01 20:39:52 BdST

তরুণ চিকিৎসকদের জ্ঞান ও দক্ষতা অর্জনে অবশ্যই গুরুত্ব দিতে হবে : বিএসএমএমইউ উপাচার্য




বিএসএমএমইউ সংবাদদাতা
________________________

তরুণ চিকিৎসকদের জ্ঞান ও দক্ষতা অর্জনের বিষয়ে অবশ্যই গুরুত্ব দিতে হবে। সাথে সাথে নিউরোসার্জারিতে প্রয়োজনীয় সংখ্যক পদ সৃষ্টির বিষয়টি যেমন জরুরি, তেমনই যাকে সেখানে পদায়ন করা হবে সেখানে চাকরি করার বা রোগীদের সেবা দেয়ার মানসিক প্রস্তুতিও থাকতে হবে বলে মন্তব্য করেছেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক কনক কান্তি বড়ুয়া।

৩১ মার্চ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) ডা. মিলন হলে আয়োজিত বাংলাদেশ সোসাইটি অফ নিউরোসার্জন্স-এর জাতীয় বৈজ্ঞানিক সম্মেলন ও ১৯তম বার্ষিক সাধারণ সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

অধ্যাপক কনক কান্তি বড়ুয়া বলেন, চিকিৎসা বিজ্ঞানে নিউরোসার্জারি খুবই গুরুত্বপূর্ণ শাখা। বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে আমাদের দেশেও নিউরোসার্জারি চিকিৎসা ব্যাপক প্রসার লাভ করেছে। জ্ঞান ও দক্ষতা অর্জনের লক্ষ্যে আধুনিক বিশ্বে আঞ্চলিক ও আন্তর্জাতিক পরিমন্ডলের সাথে সাথে এই ধরণের বৈজ্ঞানিক সম্মেলন চিকিৎসা সেবার ক্রমাগত উন্নতি সাধনের ক্ষেত্রে বিশেষ সহায়ক ভূমিকা পালন করবে।

বাংলাদেশ সোসাইটি অব নিউরোসার্জনস-এর সাধারণ সম্পাদক ডা. অসিত চন্দ্র সরকার বলেন, যে সব মেডিকেল কলেজে নিউরোসার্জারি কোর্স চালু আছে সেখানে ছাত্র ভর্তি বৃদ্ধি করার প্রয়োজন এবং পাশাপাশি পুরানো ৮টি মেডিকেল কলেজগুলোতে নিউরোসার্জারি কোর্স চালু করা দরকার। নিউরোসার্জনদের উপযুক্ত পদায়নের মাধ্যমে দেশের সর্বত্র সুষম নিউরোসার্জারি সেবা প্রদান করতে পুরোনো ১৪টি মেডিকেল কলেজে নিউরোসার্জারির নতুন পদ সৃষ্টি করা জরুরি।

বাংলাদেশ সোসাইটি অব নিউরোসার্জানস-এর কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. আখলাখ হোসেন খান বলেন, নিউরোসার্জারি বর্তমানে একটি অতিদ্রুত বিকাশমান ও প্রতিশ্রুতিশীল উচ্চ প্রযুক্তির বিষয় হিসেবে আত্মপ্রকাশ করছে। যুগ ও চাহিদার প্রত্যাশায় নিউরোসার্জারি বিস্তৃত হয়েছে বিভিন্ন শাখা প্রশাখায়। উন্নত বিশ্বে প্রতি ১ লাখ জনসংখ্যার জন্য ১ জন নিউরোসার্জন। সে হিসাবে আমাদের দেশে ১৬০০ জন নিউরোসার্জন প্রয়োজন। নূন্যতম চাহিদায় প্রতি ৫ লাখ জনগণের জন্য ১ জন নিউরোসার্জন প্রয়োজন হলেও দেশে ৩০০ জন নিউরোসার্জন প্রয়োজন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ মেডিকেল এ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ডা. মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন বলেন, কার্ডিওলজিসহ বিভিন্ন বিষয়ে দেশের চিকিৎসা ব্যবস্থা অনেক দূর এগিয়ে গেছে। নিউরোসার্জারি চিকিৎসা শাস্ত্রের একটি গুরুত্বপূর্ণ ও অপরিহার্য অংশ। বিশ্বে নিউরোসার্জারির উন্নয়ন, আধুনিকায়ন ও প্রসার দ্রুততার সাথে হচ্ছে।

বাংলাদেশ সোসাইটি অব নিউরোসার্জানস সভাপতি অধ্যাপক ডা. এটিএম মোশারেফ হোসেনের সভাপতিত্বে আরও বক্তব্য রাখেন উপ-উপাচার্য (গবেষণা ও উন্নয়ন) অধ্যাপক ডা. মোঃ শহীদুল্লাহ সিকদার, উপ-উপাচার্য (শিক্ষা) অধ্যাপক ডা. সাহানা আখতার রহমান। বাংলাদেশ সোসাইটি অব নিউরোসার্জনসের সিনিয়র সহ-সভাপতি অধ্যাপক ডা. শেখ সাদের হোসেন প্রমুখ।

উল্লেখ্য, দেশের মেডিকেল কলেজগুলোতে নিউরোসার্জারিতে প্রয়োজনীয় সংখ্যক পদসৃষ্টি, পদায়ন, কোর্স চালু ও চালুকৃত কোর্সে ছাত্রভর্তি সংখ্যা বৃদ্ধি, বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক তৈরি, প্রশিক্ষণ ও গবেষণার উপর গুরুত্বারোপ করে এই সম্মেলনের আয়োজন করা হয়েছে।

আপনার মতামত দিন:


বিএসএমএমইউ এর জনপ্রিয়