ডাক্তার প্রতিদিন

Published:
2020-05-17 10:41:42 BdST

সেই ব্যাট এবং আনন্দ বেদনার কাব্য




মেজর ডা. খোশরোজ সামাদ

______________________

১।২০১৩ সালে শ্রীলংকার বিরুদ্ধে ডবল সেঞ্চুরি করেছিলেন মুশফিকুর রহিম। তরবারির মত ঝলসে উঠেছিল যে ব্যাটটি সেটি নিলাম হল। নিলামলব্ধ অর্থ ব্যয় হবে করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ে এই সান্ত্বনায় নিজের রক্ত-ঘামমাখা সেই ব্যাটটির মায়া ছেড়েছেন মুশফিক ।

২।করোনায় আপনজন হারানোর বেদনায় পৃথিবী যখন মূহ্যমান, সব প্রার্থনা সংগীত যখন অশ্রুজলে ভিজে গেছে তখনও তস্করদের কলকাঠি নাড়ানো বন্ধ হয় নি।' ফেক বিডিং ' দিয়ে ব্যাটটি হাতিয়ে নেয়ার চেষ্টা করা হল। আরেকবার লজ্জিত হল মুশফিক, লজ্জিত হল বাংলাদেশের ক্রিকেট।

৩।শেষতক শহীদ আফ্রিদির কাছে ব্যাটটি চলে গেল । ২০ হাজার ডলার, প্রায় সতের লাখ টাকা। অংকটা নেয়াতই কম নয়। কিন্তু,বাংলাদেশের কেউই কি ছিল না? মিডিয়াতে দেখি এর - ওর এত কোটি তত কোটি টাকা। টাকাটা তো করোনার বিরুদ্ধেই ব্যয় হত!আফ্রিদি বরেণ্য ক্রিকেটার। হয়ত ব্যাটটি কিনে ক্রিকেটের পক্ষে বা করোনার বিপক্ষে তাঁর অবস্থান জানান দিয়েছেন। কিন্তু,তারপরেও প্রশ্ন থাকে ব্যাটটিকে কি কোনভাবেই দেশের মাটিতে রাখা যেত না?

৪। হাইবারনেশনে থাকা হে ধনাঢ্য ব্যক্তিগণ, ব্যাট না হয় নাই বা কিনলেন অন্তত বাহারী বিলাস ব্যসনের দোকানে ভিড়টা একটু কমান। দেশের মানুষের সাথে ইমোশনাল ডিস্ট্যান্স নয়, বাঁচতে হলে সোসাল ডিসট্যান্সটুকু অন্তত মানুন।

__________________
মেজর ডা. খোশরোজ সামাদ
ক্লাসিফাইড স্পেশালিস্ট ,ফার্মাকোলোজি
আর্মড ফোর্সেস মেডিকেল কলেজ

 

AD..

আপনার মতামত দিন:


খেলা এর জনপ্রিয়