ডাক্তার প্রতিদিন

Published:
2020-05-23 09:38:15 BdST

বেসরকারি মেডিক্যালে পরিপূর্ণ বেতন বোনাস চেয়ে চিকিৎসকদের রীট


 

ডা. অসিত মজুমদার
________________________

নভেল করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) পরিস্থিতিতে চিকিৎসকদের ঈদ বোনাস না দিয়ে বরং অনেকের বেতন কেটে নিচ্ছে বেসরকারি মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল ও ক্লিনিক। একে শ্রম আইন পরিপন্থী ও প্রাইভেট মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের অনুমোদনের শর্তবিরোধী উল্লেখ করে ভার্চুয়াল কোর্টে রিট দায়ের করা হয়েছে।
বেসরকারি মেডিক্যাল কলেজে চিকিৎসকসহ সব কর্মীদের টাকা না কেটে পরিপূর্ণ বেতন-বোনাস দিতে বাধ্য করতে বিবাদীদের প্রতি নির্দেশনা চেয়ে ২০মে ২০২০ হাইকোর্টে রিট আবেদন করা হয়েছে।

ফাউন্ডেশন ফর ডক্টরস সেফটি, রাইটস অ্যান্ড রেসপন্সিবিলিটিজের (এফডিএসআর) পক্ষে এর উপদেষ্টা ডা.এএসএম আব্দুন নূর তুষার, মহাসচিব ডা. শেখ আআব্দুল্লাহ আল মামুন এবং যুগ্ম মহাসচিব ডা. রাহাত আনোয়ার চৌধুরীর পক্ষে জনস্বার্থে বিচারপতি ওবায়দুল হাসানের ভার্চ্যুয়াল হাইকোর্টে এ রিট জমা দিয়েছেন বলে জানান আইনজীবী ইয়াদিয়া জামান।

স্বাস্থ্যসচিব, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক,বাংলাদেশ মেডিক্যাল অ্যান্ড ডেন্টাল কাউন্সিলের সভাপতি ও রেজিস্ট্রার, বাংলাদেশ প্রাইভেট মেডিক্যাল কলেজ অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতিকে বিবাদী করা হয়েছে।

সংগঠনটির মহাসচিব ডা. শেখ আবদুল্লাহ আল মামুন সারাবাংলাকে বলেন, বৈশ্বিক কোভিড-১৯ মহামারিতে এই চিকিৎসকরাই প্রথম সারির যোদ্ধা হিসেবে যুদ্ধ করে যাচ্ছে। বোনাস না দেওয়া বা বেতন কেটে নেওয়ার মতো ঘটনা তাদের মনোবল ভেঙে দিচ্ছে এবং হতাশ করছে। এমন অবস্থায় এটা কাম্য নয়। আর তাই আমরা দ্রুত এর সমাধান আশা করছি।

রিট আবেদনে বলা হয়, গত ২ মে প্রাইভেট মেডিক্যাল কলেজ অ্যাসোসিয়েশনের এক স্মারকে বলা হয়, করোনা ভাইরাস মহামারি চলাকালে বাংলাদেশের সব মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতাল গভীর সঙ্কটের সম্মুখীন হয়ে আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে। তাই সংগঠনের সদস্যভুক্ত মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালের শিক্ষক, চিকিৎসক, কর্মচারীদের উৎসব বোনাস দেওয়া হবে না।

এপ্রিল মাসের বেতন যা মে মাসে দেওয়ার কথা তা সব অধ্যাপক, সহযোগী অধ্যাপক, সহকারী অধ্যাপক ও প্রভাষকদের মোট বেতনের ৬০ শতাংশ দেওয়া হবে। তৃতীয়-চতুর্থ শ্রেণির সব কর্মচারী তাদের শতভাগ বেতন পাবেন। কলেজ স্টাফ যারা অনুপস্থিত তার ৬০ শতাংশ বেতন পাবেন। যেসব চিকিৎসক ও অন্য স্বাস্থ্যকর্মীরা হাসপাতালে ২৪ ঘণ্টা কাজ করছেন, তাদের বেতনের শতভাগ দেওয়া হবে।

পরে ৪ মে সেটা প্রত্যাহার করে নেয়। প্রত্যাহার করা ওই স্মারকে বলা হয়, বাংলাদেশ প্রাইভেট মেডিক্যাল কলেজ অ্যাসোসিয়েশনের গত ২ মে গৃহীত সিদ্ধান্ত মানবিক দিক বিবেচনা করে প্রত্যাহার করা হলো। এ বিষয়ে ভুল বোঝাবুঝির কোনো অবকাশ নেই।
ইয়াদিয়া জামান বলেন, প্রায় ২০ হাজারের মতো চিকিৎসক বেসরকারি মেডিক্যাল কলেজে চাকরি করেন। তাদের যদি যথাযথ বেতন না দেয় তাহলে তারা ডিমোরালাইজড হয়ে যথাযথ চিকিৎসা দিতে সক্ষম হবেন না। আমরা তাই ৪ মে দেওয়া স্মারক বাস্তবায়ন চেয়ে রিট করেছি।

রিটে হাসপাতাল কর্মীদের পরিপূর্ণ বেতন এবং কর্তন ছাড়া বোনাস দিতে বাধ্য করতে বিবাদীদের প্রতি নির্দেশনা চেয়ে আবেদন করা হয়েছে বলে জানান ইয়াদিয়া জামান।
রিট আবেদনে চিকিৎসকদের পূর্ণ বেতন বোনাস না দেওয়া হাসপাতাল ও ক্লিনিকের লাইসেন্স বাতিলসহ তাদের বিরুদ্ধে কেন আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে না, তা জানতে চাওয়া হয়।

তিনি আরও জানান, গত ৪ মে নভেল করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) পরিস্থিতিতে বাংলাদেশ প্রাইভেট মেডিকেল কলেজ অ্যাসোসিয়েশনের (বিপিএমসিএ) সদস্যভুক্ত মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের শিক্ষক, চিকিৎসক ও কর্মচারীরা পূর্ণ বেতন পাবেন বলে সিদ্ধান্ত জানানো হয়। এই সিদ্ধান্তের পরও অনেক বেসরকারি মেডিকেল কলেজ হাসপাতালেই চিকিৎসকরা পূর্ণ বেতন পাননি বলে অভিযোগ করা হয়েছে বলেই এই রিট করা হয়েছে।

AD..

_________

 

আপনার মতামত দিন:


মেডিক্যাল ক্যাম্প এর জনপ্রিয়