ডাক্তার প্রতিদিন

Published:
2020-05-17 09:59:55 BdST

হ্যান্ড স্যানিটাইজারের ভয়ংকর ৭টি বিপদ এবং প্রতিকার




মেজর ডা. খোশরোজ সামাদ

___________________


করোনা প্রতিরোধে ঘন ঘন হ্যান্ড স্যানিটাইজার দিয়ে হাত ধুতে বলা হচ্ছে। কথাটি সত্য হলেও হ্যান্ড স্যানিটাইজার অনেক পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া এবং বিপদও এনেছে।এটিতে উঁচু মাত্রায় এলকোহল থাকায় এটি ' Class l flamable liquid substance ' এর দলে ফেলা হয়। অর্থাৎ এটি ১০০ ডিগ্রী সেলসিয়াস তাপমাত্রার কমেই আগুন ধরাতে পারে।

২।চুলার আশেপাশে, সুইচসহ যেখানে যেখানে বৈদুতিক সংযোগ আছে সেখানে হ্যান্ড স্যানিটাইজার রাখলে আগুন ধরে যাওয়ার আশংকা আছে।

৩।অসাধু ব্যবসায়ীরা বা ভীত হয়ে যারা প্রচুর পরিমানে হ্যান্ড স্যানিটাইজার কিনেছেন সেগুলি দীর্ঘদিন রোদের স্পর্শে অধিক তাপমাত্রায় বিস্ফোরিত হতে পারে।

৪।হ্যান্ড স্যানিটাইজার দিয়ে 'ভ্যাপার ' নেয়াও ঝুঁকিপূর্ণ। এছাড়া ভ্যাপারে কার্বন ডাই অক্সাইড ( co2) বা কার্বন মনোক্সাইড ( CO) এর মত বিষাক্ত গ্যাস সৃ ষ্টি করতে পারে।

৫।বেশী বেশী হ্যান্ড স্যানিটাইজার চামড়াকে শুস্ক করে বার্ধক্যজনিত চামড়ার আকৃতি দিতে পারে। এ ছাড়া হাতে ব্যক্টেরিয়ার সংক্রমণে এন্টিবায়োটিককে resistant বা কার্যহীন করতে পারে।

৬।হ্যান্ড স্যানিটাইজারের বোতলের আকর্ষনীয় আকৃতি, এলকোহলের সুমিষ্ট ঘ্রাণে শিশুরা এটি খেয়ে ফেলতে পারে ফলে মৃত্যুও হতে পারে।

৭।সাধারণ সাবান ২০ সেকেন্ড দিয়ে ধুঁয়ে ফেললে করোনার ভাইরাসকে নিস্ক্রিয় করা সম্ভব। সাবান সাশ্রয়ীও বটে। তাই হ্যান্ড সানিটাইজারের বদলে অনেকেই সাবান ব্যবহারকে উৎসাহিত করেন।

জনসবার্থে লেখাটিকে লাইক ,কমেন্ট দিয়ে সজীব রাখুন ।
__________
মেজর ডা. খোশরোজ সামাদ
ক্লাসিফাইড স্পেশালিষ্ট ফার্মাকোলোজি
আর্মড ফোর্সেস মেডিকেল কলেজ

____________________

আপনার মতামত দিন:


মেডিক্যাল ক্যাম্প এর জনপ্রিয়