AMIN QUADIR

Published:
2021-01-27 20:12:03 BdST

সবাইকে দিয়ে নিই, তারপর আমি নেবো: প্রধানমন্ত্রী



ডেস্ক
______________________

করোনার টিকা দান প্রশ্নে বাংলাদেশের মানুষের সর্বাগ্রাধিকার নিশ্চিত করে
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, আগে আগে নিলে বলবে আগে নিজেই নিলো, কাউকে দিলো না। সবাইকে দিয়ে নিই তারপর আমি নেবো।বাংলাদেশে করোনা ভাইরাসের টিকাদান কার্যক্রমের উদ্বোধনের পর এক পর্যায়ে তিনি একথা বলেন।

সমালোচনাকারীদেরও টিকা নেওয়ার আহ্বান জানিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, যাই হোক, আমি চাই তারাও সাহস করে আসবেন, তাদেরও ভ্যাকসিন দিয়ে দেব। যাতে তারা সুরক্ষিত থাকেন। কারণ তাদের যদি কিছু হয় তাহলে আমাদের সমালোচনাটা করবে কে? সমালোচনার লোকও থাকা দরকার। থাকলে আমরা কিছু জানতে পারি, আমাদের কোনো ভুল-ভ্রান্তি হলো কিনা। সে জন্য তাদের আমি সাধুবাদ দিচ্ছি। তাদের সমালোচনা যত হয়েছে, আমরা কিন্তু তত বেশি দ্রুত কাজ করার একটা প্রণোদনা পেয়েছি।


বুধবার (২৭ জানুয়ারি) বিকেলে গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সে এই টিকাদান কর্মসূচির উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

স্বাস্থ্যসেবা বীর ডাক্তার নার্সসহ জনসেবাকর্মী পুলিশ ও সেনাকর্মকর্তাসহ ৫জনকে টিকাদান শেষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গণভবন থেকে বলেন, মন চাচ্ছে আমরা গিয়ে নিয়ে আসি। আগে আগে নিলে বলবে আগে নিজেই নিলো, কাউকে দিলো না। সবাইকে দিয়ে নিই, তারপর আমি নেবো।


গুজব-সমালোচকদের জবাব দিলেন প্রধানমন্ত্রী

ভ্যাকসিন নিয়ে সরকারের নেতিবাচক সমালোচনাকারীদের উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, সবকিছুতেই কিছু ভালো লাগে না নামে একটা রোগে তারা ভোগেন। এই রোগের কী চিকিৎসা আছে আমি জানি না, এর জন্য কোনো ভ্যাকসিন পাওয়া যাবে কিনা তাও জানি না।

 

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, আপনারা জানেন ভ্যাকসিন আসার সঙ্গে সঙ্গে সেগুলো টেস্ট করা হয় এবং তারপর দেওয়া হয়। আমাদের দুর্ভাগ্য হলো— কিছু কিছু লোক থাকে সব কিছুতেই একটা নেতিবাচক মনোভাব তারা পোষণ করেন। হয়তো তাদের কাছ থেকে মানুষ কোনো সাহায্য পায় না। কিন্তু কোনো কাজ করতে গেলে সেখানে বিরূপ সমালোচনা, মানুষের ভেতরে সন্দেহ ঢোকানো, মানুষকে ভয়-ভীতি দেওয়া— এই ধরনের কিছু কাজ কারো কারো অভ্যাস আছে।

শেখ হাসিনা বলেন, সবসময়ই তাদের কোনো কিছুই ভালো লাগে না, যত ভালো কাজই করেন। সবকিছুতেই কিছু ভালো লাগে না নামে একটা রোগে তারা ভোগেন। এই রোগের কী চিকিৎসা আছে আমি জানি না, এর জন্য কোনো ভ্যাকসিন পাওয়া যাবে কিনা তাও জানি না।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, কিছু ভালো লাগে না— এই ধরনের রোগ কিন্তু পত্রিকা দেখলেই পাবেন। সেখানে সবকিছুতে একটা দোষ টোগানো (খোঁজা), এই ভ্যাকসিন আসবে কি আসবে না, আসলে পরে এত দাম হলো কেন, এটা চলবে কিনা, দিলে কী হবে— নানা প্রশ্ন তাদের।

 

অনলাইন রেজিস্ট্রেশন (নিবন্ধন) ছাড়া কেউ করোনা (কোভিড-১৯) টিকা পাবে না বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। করোনা টিকার জন্য ডিজিটাল ভ্যাকসিন ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম ‘সুরক্ষা’তে অনলাইনে রেজিস্ট্রেশন করতে হবে। www.surokkha.gov.bd ওয়েবসাইটে গিয়ে এই অনলাইন রেজিস্ট্রেশন করতে হবে।

 

আপনার মতামত দিন:


মানুষের জন্য এর জনপ্রিয়