Ameen Qudir

Published:
2019-10-03 15:17:06 BdST

মুখ্যমন্ত্রীর মমতা : রাস্তার পাশে অসুস্থ তরুণীকে দেখে গাড়ি থামিয়ে চিকিৎসার ব্যবস্থা করলেন


ডেস্ক: ৮ বছর ধরে রাজ্যের প্রশাসনিক প্রধান হয়েও যে কোনও সময়ে তিনি পথে নেমে মানুষের পাশে দাঁড়াতে এতটুকুও পিছপা হন না মুখ্যমন্ত্রী। যেমন ঘটল পুজোর মরশুমেই। চতুর্থীতে পুজো উদ্বোধন সেরে ফেরার পথে চেতলার কাছে রাস্তার পাশে এক অসুস্থ তরুণীকে দেখেই গাড়ি থেকে নেমে পড়েন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তড়িঘড়ি তাঁর চিকিৎসার ব্যবস্থা করেন। এতে কৃতজ্ঞ ওই তরুণী।
চতুর্থীতে দক্ষিণ কলকাতার বিখ্যাত পুজো সুরুচি সংঘের মণ্ডপ উদ্বোধন করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেখান থেকেই ফিরছিলেন নবান্নে। চেতলা থেকে বেরিয়ে দুর্গাপুর ব্রিজ ধরে ফিরছিলেন তিনি। নিউ আলিপুরের কাছে আচমকাই রাস্তার পাশে দেখেন, এক তরুণী অসুস্থ অবস্থায় পড়ে রয়েছেন। তখনিই গাড়ি থামিয়ে নেমে পড়েন মুখ্যমন্ত্রী। তাঁর সঙ্গে ছিলেন রাজ্যের পুরমন্ত্রী তথা কলকাতার মেয়র ফিরহাদ হাকিম। তাঁকে নির্দেশ দেন, তড়িঘড়ি যেন তিনি তরুণীর চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়। নির্দেশ পেয়েই তৎপর হন পুরমন্ত্রী। তিনি তরুণীকে হাসপতালে ভরতি করার ব্যবস্থা করেন। অসহায় মেয়েকে মুখ্যমন্ত্রী নিজে এভাবে এগিয়ে এসে সাহায্য করেছেন, তা শুনেই কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছে তরুণীর পরিবার।
এর আগেও বেশ কয়েকবার মুখ্যমন্ত্রীর এমন মানবিক মুখ দেখা গিয়েছে। কখনও তিনি ভিড়ের রাস্তায় নিজের কনভয় থামিয়ে যাত্রীবাহী গাড়িকে রাস্তা ছেড়ে দিয়েছেন। কখনও বা গাড়ি থেকে নেমে দরিদ্র গ্রামবাসীদের কাছে গিয়ে তাঁদের সুখ-দুঃখের কথা শুনেছেন। ঠিক যে জনগণের পাশে দাঁড়িয়ে রাজনীতিতে এমন চমকপ্রদ উত্থান হয়েছে তাঁর, সেই গোড়ার কথা যে তিনি ভুলে যাননি, নবান্নের মসনদে বসেও তা বারবার প্রমাণ দিয়েছেন। এবার সেই তালিকায় সংযোজন হল আরেকটি ঘটনা। একেবারে রাস্তার ধার থেকে তরুণীকে তুলে চিকিৎসার ব্যবস্থা করলেন তিনি।

 

@সংবাদ প্রতিদিনের সঙ্গে দু বাংলা যৌথ সংবাদ পরিবেশন। 

আপনার মতামত দিন:


মানুষের জন্য এর জনপ্রিয়