Ameen Qudir

Published:
2019-07-01 10:06:01 BdST

বাসর রাতে চিকেন পক্স !



ডা. সাঈদ এনাম

___________________________

অনেকটা লুকিয়ে বোরকা হিজাব পরে চেম্বারে রোগী এলেন। সাথে এক গাদা মহিলা। মহিলাদের অনেক কে চেনা অনেক আবার অচেনা। চেনা একজন বলেই বসলেন, "তোর চেম্বারের সিস্টার তো বেয়াদপ সেই আধঘণ্টা যাবৎ বসিয়ে রেখেছে, কত বললাম ডাক্তার আমার সম্পর্কে ছোট ভাই, শুনলই না..., তুই কালই ওকে...."
আমি হেসে বললাম, "আপা থামো কি হয়েছে বলো, আর এই মহিলাকে, কি হয়েছে তার..."?
আমার কথা শুনে এদিক ওদিক তাকিয়ে টান মেরে নেকাব খুলে বললো,
"ভাইয়া আমি মহিলা না, আমি রেহনুমা। এই দ্যাখো আমার চিকেন পক্স বেরিয়েছে। পরশু আমার বিয়ে...." বলেই হাউমাউ করে কেঁদে ফেললো।

সম্পর্কে ছোট বোনের বান্ধবী 'রেহনুমার' মুখের দিকে তাকিয়ে আমি সহ সাথে আসা একগাদা মহিলাকুল ও কয়েক মিনিট থ' বনে গেলাম। পরশু মেয়ের বিয়ে আর আজ মুখ ভর্তি 'বৃষ্টির ফোটার' মতো ছোট ছোট ফুসকা, চিক চিক করছে তার মুখ।

ঝটপট নিজেকে সামলে বললাম, 'ওকি হয়েছে। ওতো চিকেন পক্স। এক সপ্তাহে কমে যাবে...'

সে বললো, 'ভাইয়া তুমি কি বলছো তুমি বুঝতে পারছো, নাকি সাইকিয়াট্রি প্রেক্টিস করতে করতে....'

আমি তাকে থামিয়ে বললাম, "চুপ করতো। তুই কি জানিস আমার মেডিকেলের ভর্তি পরীক্ষার দুদিন আগে সারা গায়ে চিকেনপক্স বেরিয়েছিল। পরীক্ষা দিতে চাইনি, পরে মুখে রুমাল দিয়ে পরীক্ষা হলে গিয়েছিলাম। খুব কষ্টের মধ্যে পরীক্ষা দেই...,এবং আমি ঢাকা মেডিকেলে চান্স পাই...."

"বলো কি, তাই। কিন্তু ভাই আমারতো মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষা না, অগ্নি পরীক্ষা আমার বিয়ে। আর বাসর রাতে এ অবস্থায় স্বামী দেখলে সে'তো মাগো ভুত ভুত বলে পালাবে...., তুমি এমন ওষুধ দাও যাতে দুদিনে চিকেন পক্স কমে। তোমার ভিজিট দ্বিগুণ তিনগুন পাবে..."

উপস্থিত সবাই তার সাথে সুর মিলালো, "হ্যা হ্যা ডাক্তার তাই কর তুই, এমন ঔষধ দে যাতে আজ রাতেই চিকেন পক্স কমে যায়.."

উপস্থিত একগাদা চল্লিশোর্ধ্ব মহিলা কুলের কথায় হাসি পেলো রাগও হলো তবু কিছু বললাম না, কারন গুনীজন কহেন, এ বয়সে বয়সী মহিলাদের নাকি বুদ্ধিসুদ্ধি একটু কম থাকে।

চোখেমুখে একটু সিরিয়াস ভাব এনে বললাম,
"দেখো আপু খালা বোনেরা, যা হবার হয়ে গেছে কিছুই করার নেই। একটাই কাজ পাত্র এবং তার মুরব্বী কে অসুস্থতার কথা এক্ষুনি জানিয়ে দাও। সমস্যা নেই। আর দুচারটে দিন রেস্ট কর, বেশি বেশি পানি খা, গোসল কর বার বার, সেরে যাবে..."

এক গাদা চালশে রমনীকূুলের অর্ধেক সহাস্যে রাজী হলেন আর অর্ধেক সিরিয়াস হয়ে বললেন, 'না জানানো যাবে না, কারন বিয়ে ভেংগে যাবে...'

আমি বললাম, 'এটাই পাত্রের অগ্নীপরীক্ষা তাকে জানাও...., বাদবাকি আমি দেখবো..."

রেহনুমার বিয়ে ভেংগে যায়।

চিকেন পক্সের কথা শুনে পাত্র বিয়ে ভেংগে দেয়। কিন্তু পরের সপ্তাহেই এক ডাক্তারের সাথে বিয়ে হয়। আমি রেহনুমা ছিলাম রেহনুমার উকিল বাবা। ও এখন সুইজারল্যান্ড। মাঝেমধ্যে ফোন করে। এক সময় হ্যালো বলে "ভাইয়া কেমন আছো" ডাকে আরেক সময় বলে, 'হ্যালো উকিল পাপা কেমন আছো...'।

ইউরোপিয়ান সাইকিয়াট্রিক এসোসিয়েশন এর সায়েন্টিফিক সেমিনারে গতমাসে পোলান্ড গিয়েছিলাম। ভেবেছিলাম সময় পেলে সুইজারল্যান্ড হয়ে আসবো। সময় আর হয়নি।


ডা. সাঈদ এনাম
সাইকিয়াট্রিস্ট

মেম্বার, আমেরিকান সাইকিয়াট্রিক এসোসিয়েশন
মেম্বার, ইউরোপিয়ান সাইকিয়াট্রিক এসোসিয়েশন

আপনার মতামত দিন:


কলাম এর জনপ্রিয়