ডাক্তার প্রতিদিন

Published:
2020-07-15 11:52:33 BdST

মন্তব্য প্রতিবেদন"নেতাদের সঙ্গে সেলফি ও পয়সা দিয়ে টকশো কাজে আসে না:কুরবানীর গরুর মত 'কট' হতে পারেন "



ডেস্ক
____________

রিজেন্ট হাসপাতাল কেলেঙ্কারীতে ফেঁসে যাওয়া , সাতক্ষীরায় কর্দমাক্ত অবস্থায় র্যাবের জালে আটকা প্রতারক সম্রাট শাহেদকে নিয়ে এখন মন্তব্যে উত্তাল ফেসবুক ।
সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবি কাজী ওয়াসিমুল হক বলেন,
ছবিটাতে শিক্ষনীয় অনেক কিছুই আছে, প্রথমেই আছে যে সেলফি কোন কাজে আসেনা, আজ আপনি নেতাদের সাথে ছবি তুলবেন, কাল আপনাকে কোরবানীর গরুর মত এবং কোরবানীর গরু হিসেবেই ছবি তুলবে।
দ্বিতীয়ত, উচু লেভেলের ক্রাইম করার জন্য উচু লেভেলের শিক্ষার প্রয়োজন হয়, না হলে আচমকা 'কট' খেয়ে যেতে পারেন।
.
সব চাইতে ফানি ব্যাপারটা বলি, উনি যদি সরাসরি সারেন্ডার করতেন, তাহলে এখন যতখানি গাড্ডায় পড়েছেন, ততখানিতে ডেফিনিটলি পড়তেন না, সর্বোচ্চ কয়েক বছর জেলে থাকতে হত, তাও সেটা খুব বেশী দিনের জন্য না। আর এর মানেই হল উনাকে পরামর্শ দেবার মত কোন ভাল আইনজীবী ছিল না, আইনজীবীদের সাথে টাচে না থাকাটা অবশ্য নতুন কিছু না, বেশিরভাগ হাসপাতাল-ক্লিনিক মালিক আইনের চেয়ে বরং টাকা আর কানেকশন দিয়ে সমস্যা সমাধানে অভ্যস্ত।
.
ছবির সবচাইতে গুরুত্বপূর্ন অংশ অবশ্য পিস্তলটা ।

ডা. নুরুন চৌধুরী মন্তব্যে বলেন,

ধন্যবাদ বাংলাদেশ পুলিশবাহিনীকে!সাহেদকে পাকরাওর জন্য তবে বিশেষ অনুরোধ এমন ভাবে মামলা করবেন যাতে রাঘব বোয়ালরাও জালে আটকা পড়ে! কেউ ছাড়া না পায়!এখন দেশ গড়ার সময়!দেশে সু্স্হ,শান্তি ও স্বাভাবিক পরিবেশ আনতে হবে! যে ভালবাসা আজ পেয়েছেন জনগনের,এটা ধরে রাখতে হবে! ১৭কোটির ভালবাসা চাট্টিখানি কথা নয়!এটা কোভিডের কারনে বহু প্রান ও সততার বিনিময়ে অর্জন তা সহজে গড্ডালিকার প্রবাহে ভাসাবেন না!জীবন খুবই তুচ্ছ কিন্তুু আপনার কর্মই ইতিহাস হয়ে থাকবে ১০০ বছর পরেও!সমাজ থেকে দু্ৃর্নীতি নির্মুলে আপনাদের সাহায্য বড়ই প্রয়োজন!


দুই বাংলায় সমাদৃত
বিশিষ্ট কথাশিল্পী অধ্যক্ষ মাসুদ আলম বাবুল লিখেছেন রীতিমত প্যারোডি কবিতা ।

সাহেদ চরণ

সব সাহেদের বুক
করতেছে ধুকধুক
এরপরে কার পালা
আগেভাগে হ ভালো হ
নইলে আজই পালা।
সাহেদ ধরে কয়েদ করে
তেমন কি লাভ হবে?
সাহেদ তৈরির কলকারখানা
বন্ধ হবে কবে?
নষ্ট লোকের নষ্টামিতে
কষ্টে আছে জাতি
এদের নাসারন্ধ্র বন্ধ
করুন রাতারাতি।

আপনার মতামত দিন:


কলাম এর জনপ্রিয়