Ameen Qudir

Published:
2020-04-03 10:17:38 BdST

করোনা সংক্রমণ: দিল্লি পুলিশ খুঁজছে তাবলীগ প্রধানকে: তিনিও ভাইরাসে আক্রান্ত !



ডেস্ক / সংবাদ সংস্থা
________________
সরকারি নিষেধ অমান্য করে , বিজ্ঞান ও স্বাস্থ্য বিধি অমান্য করে কুসংস্কারে বিশ্বাস করলে কি করুণ ভয়ঙ্কর পরিনতি হতে পারে, তার প্রকৃষ্ট নজির এখন দিল্লির তাবলিগ জমাত । এই ধর্মগোষ্ঠির প্রধান মওলানা সাদ কান্ধালভি নিজেও করোনা ভাইরাস সতর্কতা অমান্য করে রোগাক্রান্ত বলে ধারণা করছে দিল্লি পুলিশ কর্তারা।
ভারতবর্ষ জুড়ে , উপমহাদেশ ব্যপী যত বেশি করোনা আক্রান্ত ধরা পড়ছে, ততই সন্দেহের তির ঘুরে ফিরে দিল্লির নিজামউদ্দিন মারকাজের তাবলিঘি জামাতের দিকেই যাচ্ছে। তবে এখনও পর্যন্ত ওই কাণ্ডে মূল অভিযুক্ত, মারকাজ নিজামউদ্দিনের মওলানা সাদ কান্ধালভির কোনও খোঁজ পাওয়া যায়নি। পুলিশ তাঁকে হন্যে হয়ে খুঁজছে। এর মধ্যেই অন্তরালে থেকে অডিয়ো বার্তায় মওলানা জানিয়েছেন, তিনি কোয়রান্টিনে রয়েছেন। সাদ কান্ধালভিও করোনায় আক্রান্ত বলে মনে করা হচ্ছে।

গত ২৮ মার্চ শেষবারের মতো দেখা গিয়েছিল কান্ধালভিকে। তার পর থেকে তিনি বেপাত্তা। মারকাজ নিজামউদ্দিনে জমায়েত করা ও থাকার জন্য তিনিই উৎসাহ দিয়েছিলেন বলে মনে করছে পুলিশ। একশো বছরের বেশি বয়স নিজামউদ্দিনের ওই বাড়িটির। পুলিশ সূত্রে খবর, বাড়ি খালি করার জন্য নোটিসও দেওয়া হয়েছিল। অভিযোগ মওলানা সাদ তা অগ্রাহ্য করে গিয়েছিলেন। নিজামউদ্দিন কাণ্ডে মওলানা ছাড়াও, মারকাজের আরও ছয় কর্তাকেও খুঁজছে পুলিশ।


মওলানাকে ধরতে ইতিমধ্যেই লখনউ, মুজফফরনগর-সহ বিভিন্ন এলাকায় দল পাঠিয়েছে দিল্লি ক্রাইম ব্রাঞ্চ। গোয়েন্দারা জানতে পেরেছেন, মওলানা নিজেও করোনায় আক্রান্ত। আর বুধবার মওলানা সাদের নামে যে দু'টি অডিয়ো প্রকাশ্যে এসেছে তা-ও সে দিকেই ইঙ্গিত করছে।

মারকাজ ইউটিউব চ্যানেলে প্রথম অডিয়োয় বলা হয়েছে, ‘মসজিদই মৃত্যুর জন্য সেরা স্থান’। দ্বিতীয় অডিয়োয় অবশ্য একশো আশি ডিগ্রি ঘুরে বার্তা দেওয়া হয়েছে, ‘নিঃসন্দেহে, পৃথিবীতে যা হচ্ছে তা মানুষের অপরাধের ফল। আমাদের ঘরে থাকা উচিত। এটাই সৃষ্টিকর্তার ক্রোধকে শান্ত করতে পারে। চিকিৎসকদের পরামর্শ মানুন এবং প্রশাসনের সঙ্গে সহায়তা করুন। কোয়রান্টিনে থাকুন, সে আপনি যেখানেই থাকুন না কেন। এটা ইসলাম বা শরিয়ত বিরোধী নয়।’
সংবাদ সূত্র আনন্দবাজার পত্রিকা।

আপনার মতামত দিন:


কলাম এর জনপ্রিয়