|

রিপ্রেজেন্টেটিভরা এবার অশিক্ষিত ওষুধ দোকানদারদের খুশী করবে !!


Published: 2017-01-10 14:15:04 BdST, Updated: 2017-01-20 05:29:37 BdST

 

ডা. শিরিন সাবিহা তন্বী

__________________________

 

হায়রে বাংলাদেশ!
সবকিছুর ই এক অদ্ভুত ভার্সন তৈরী হয়।
শুধু মাত্র হাতে গোনা কিছু ওয়েল প্রাকটিশনার চিকিৎসকের প্রাকটিসের প্রতি জেলাসী এবং হীনমন্যতার কারনে আজকে একটি দেশের সব চিকিৎসকদের জীবন করুণ করে তুলছে কিছু হাম্বাদিক আর অল্প বিদ্যা ভয়ংকরী জনগন।

আইন করে ক্যাপিটাল অক্ষরে প্রেসক্রিপশন আর ঔষধের জেনেরিক নেম লেখা সাদুবাদ জানাবার মত বিষয়।

কিন্তু এটা বাংলাদেশ।
ঔষধ কোম্পানীর সময় নিয়ন্ত্রন করতে গিয়ে কোম্পানীর এম আর দের ক্ষোভ শুনেছি।তারা সাইন্স এ পড়েছে।মার্স্টার্স করা।এতদিন তারা ডাক্তারদের ডিল করেছে ঔষধের নাম জানাতে।


এবার খেলা জমবে।অশিক্ষিত - ঔষধের দোকানদারদের ডিল করবে।খুশি রাখবে।
ওদের নিয়ন্ত্রন করা সীমার মধ্যে হলেও পট কোম্পানী নিয়ন্ত্রন - লুঙ্গি পরে রুগীর ভীড়ে হারিয়ে যাওয়া ওদের রিপ্রেজেনটিভ আমার সীমার মধ্যে নাই।


তাই এখন থেকে এরা বসে থাকবে ঔষধের দোকানে কিংবা নিজেরাই ঔষধের দোকান দিয়ে বসবে।প্রতিটি ঔষধ কোম্পানীর রিপ্রেজেনটিভ এক একটি ঔষধের দোকান দিয়ে বসবে এবং প্রেসক্রিপশন ধরে ইচ্ছে মতো ঔষধ দেবে।আমাদের সাধারন রুগীগন তা হাসিমুখে কিনবে।খুব শীঘ্রই এর খারাপ ইফেক্ট আমরা দেখতে পাব।

এই আইনের সাথে সাথে ঔষধ বিক্রির পুরো সিস্টেম টাকে বদলাতে হবে।এবং চিকিৎসকদের ম্যাজিট্রেসী পাওয়ার দিয়ে তা নিয়ন্ত্রন করতেই হবে।
আর তা না দিলে অতি শীঘ্র ঔষধের বদলে পয়সা দিয়ে ময়দার গোলা কিনে খাবে গরীব রুগী।

আর পয়সাওয়ালাদের জন্য চিকিৎসা সফর সাথে মিনি হানিমুন তো আছেই।।

_________________________________

 

ডা. শিরিন সাবিহা তন্বী । দেশের জনপ্রিয় কলামিস্ট। মহৎপ্রতিভাবান কথাশিল্পী। মেডিকেল অফিসার, শেরে বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।