Ameen Qudir

Published:
2018-12-06 11:54:50 BdST

একজন সিভিল সার্জন গুরুতর অসুস্থ : স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পদাধিকারীরা কি তার খোঁজ নিয়েছেন?




ডা. মোঃ শাব্বির হোসেন খান
______________________________

একজন সিভিল সার্জন হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে আজ ৮ দিন ধরে ইউনাইটেড হাসপাতালে ভর্তি আছেন। তাঁর CAG with Coronary Stenting করা হয়েছে। মাঝে তাঁর অবস্থা খুব খারাপ হয়ে গিয়েছিল, যার কারনে তাকে স্বাভাবিকের অতিরিক্ত ৩ দিন CCU তে থাকতে হয়েছিল।
একটি জেলার সর্বোচ্চ চিকিৎসা কর্মকর্তা অসুস্থ্য। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বা অন্য কোন উর্দ্ধতন কর্মকর্তা কিংবা স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা তাঁকে দেখতে যাওয়া দূরে থাক, টেলিফোনেও কি খোঁজ নিয়েছেন? সিলেটের বিভাগীয় পরিচালক (স্বাস্থ্য) ডা. সোহরাওয়ার্দী ছাড়া আর কেউ তার খোঁজও নেন নি।

অন্য ক্যাডারের আরও জুনিয়র কর্মকর্তা এ'রকম অসুস্থ্য হলেও কি এই চিত্র দেখতাম আমরা? উল্লেখ্য, এই কর্মকর্তা ১৩শ বিসিএস এর একজন সিনিয়র অফিসার। ২৮ নভেম্বর CAG করে তার Rt CA তে দু'টো stent লাগানো হয়েছে; Lt CA ও diffusely diseased.

 

ধন্যবাদ জানাতে হয় বিএমএ মহাসচিব ডা. ইহতেশামুল হক চৌধুরী (Ehtesham Choudhury) এবং আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক ডা. রোকেয়া সুলতানা (Rokeya Sultana) সহ অন্যান্য বিএমএ নেতৃবৃন্দকে, যারা শুধু টেলিফোনে খোজ খবরই নয়, ব্যক্তিগতভাবে ইউনাইটেড হাসপাতালে গিয়ে তাঁর খোজ খবর নিয়েছেন, তাঁকে দেখে এসেছেন।
এই অধিদপ্তর আর এই মন্ত্রণালয়ের অধীনে আমরা ডাক্তাররা চাকরী করি, ভাবতেও কষ্ট হয়!
উল্লেখ্য, ২৭ নভেম্বর রাতে IMI হলে তাৎক্ষণিক তাঁকে সিওমেক হাসপাতালে নেয়া হয়েছিল। সেখানে সিসিইউর চিকিৎসকরা তাৎক্ষণিকভাবে Streptokinase দিয়ে তাঁকে CAG with Pharmaco-invasive stenting এর জন্য ঢাকায় রেফার করেন। ২৮ তারিখ ভোরেই দ্রূত তাকে ICU Ambulance এ ঢাকার ইউনাইটেড হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। আর সেদিন বিকেলেই ডা. মোমিনুজ্জামান স্যার তাঁর CAG করে চিকিৎসা প্রদান করেন। আজ তিনি মোটামুটি সুস্থ্য হওয়ায় তাঁকে আগামীকাল সকালে ইউনাইটেড হাসপাতাল থেকে রিলিজ দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন সেখানকার চিকিৎসকেরা।
সবার কাছে তাঁর জন্য দোয়া প্রার্থনা করছি।
_________________________

 

ডা. মোঃ শাব্বির হোসেন খান
সিওমেক'২২
সভাপতি,
মৌলভীবাজার বিএম এ


মেডিক্যাল ক্যাম্প এর জনপ্রিয়